আজ ১৩ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ও ৩০শে চৈত্র, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ এবং ৪ঠা শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

স্থিতিশীল সম্পর্কের প্রতিশ্রুতি চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের

স্থিতিশীল সম্পর্কের প্রতিশ্রুতি চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক

উত্তেজনাপূর্ণ সম্পর্ক স্থিতিশীল রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ও চীন। বেইজিংয়ে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিনকেনের দুই দিনের সফর শেষে এই প্রতিশ্রুতি এসেছে। সোমবার তিনি চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের সঙ্গে বৈঠক করেন। এর মধ্য দিয়ে বিশ্বের দুই পরাশক্তির মধ্যে উচ্চ-পর্যায়ের যোগাযোগ পুনরায় শুরু হয়েছে।

বৈঠকের পর চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং অগ্রগতি হওয়ার কথা বলেছেন। অন্যদিকে ব্লিনকেন ইঙ্গিত দিয়েছেন উভয় পক্ষই আরও চালিয়ে যেতে রাজি। তবে যুক্তরাষ্ট্রের এই শীর্ষ কূটনীতিক সতর্ক করে বলেছেন, এখনও বড় মতপার্থক্য থেকে গেছে।

তিয়েনমেন স্কয়ারের গ্রেট হল অব দ্য পিউপিলে ৩৫ মিনিট বৈঠকের পর এক সংবাদ সম্মেলনে ব্লিনকেন বলেন, আমি জোর দিয়ে বলেছি… দায়িত্বশীলভাবে মতপার্থক্য নিরসনের সবচেয়ে ভালো উপায় সিনিয়র পর্যায়ে যোগাযোগ বজায় রাখা এবং প্রতিযোগিতাকে সংঘাতে পরিণত হতে না দেয়া। তিনি বলেন, চীনা পক্ষের কাছ থেকেও এটাই শুনেছি। আমরা উভয়েই সম্পর্ক স্থিতিশীল রাখার প্রয়োজনীয়তার বিষয়ে সম্মত হয়েছি।

ট্রাম্প আমলের বাণিজ্য বিরোধের পর নানা ইস্যুতে চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের বিরোধ রয়েছে। তাইওয়ান নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান এবং বছরের শুরুতে চীনা বেলুন ভূপাতিত করা নিয়ে বেইজিংয়ের অসন্তোষ রয়েছে। গত পাঁচ বছরের মধ্যে চীনে যুক্তরাষ্ট্রের কোনো শীর্ষ কূটনীতিকের এটাই প্রথম সফর।

মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ব্লিনকেন ও শি জিনপিংয়ের মধ্যে বৈঠকে ইউক্রেনে রাশিয়ার যুদ্ধ, তাইওয়ান ও উত্তর কোরিয়া সংকট এবং বেইজিংয়ের মানবাধিকার লঙ্ঘন নিয়েও আলোচনা হয়েছে।

নিউজ শেয়ারঃ

আরও সংবাদ

জনপ্রিয় সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

আলোচিত সংবাদ

নিউজ শেয়ারঃ
শিরোনামঃ
Verified by MonsterInsights