আজ ৮ই ডিসেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ ও ২৩শে অগ্রহায়ণ, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ এবং ২৪শে জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

পাইকগাছায় চরম ঝুঁকিতে গড়ইখালীর ভাঙ্গন কবলিত খুদখালী এলাকা; ঝুঁকিপূর্ণ স্থানে বিকল্প প্রতিরক্ষা বাঁধ নির্মাণ

  • In সারাবাংলা
  • পোস্ট টাইমঃ ১০ জুন ২০২৩ @ ০৭:১৭ অপরাহ্ণ ও লাস্ট আপডেটঃ ১০ জুন ২০২৩@০৭:১৭ অপরাহ্ণ
পাইকগাছায় চরম ঝুঁকিতে গড়ইখালীর ভাঙ্গন কবলিত খুদখালী এলাকা; ঝুঁকিপূর্ণ স্থানে বিকল্প প্রতিরক্ষা বাঁধ নির্মাণ

।।উৎপল রায় দাকোপ প্রতিনিধি।।

পাইকগাছায় সুন্দরবন সংলগ্ন গড়ইখালীর খুদখালীর ভাঙ্গন কবলিত এলাকা চরম ঝুঁকিতে রয়েছে। ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ভেঙ্গে যে কোন মুহূর্তে দুই উপজেলার ৫ ইউনিয়নের বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হতে পারে এমন আশঙ্কায় ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় বিকল্প প্রতিরক্ষাবাঁধ নির্মাণ করা হচ্ছে।

উপজেলা প্রশাসনের দিক নির্দেশনায় ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের তদারকিতে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের সহযোগিতায় স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ প্রতিরক্ষাবাঁধ নির্মাণ কাজ বাস্তবায়ন করছে। উল্লেখ্য, উপজেলার সুন্দরবন সংলগ্ন গড়ইখালী ইউনিয়নের কুমখালীর খুদখালী এলাকায় ওয়াপদার বেড়িবাঁধে স্বাধীনতার পূর্বে ভাঙ্গন দেখা দেয়। ভাঙ্গন রোধে স্থানী কোন ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় প্রতিবছর ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে নতুন নতুন এলাকা। যে কোন দুর্যোগ কিংবা ভরাপূর্ণিমার সময়ে উদ্বেগ ও উৎকণ্ঠার মধ্যে থাকে অত্র এলাকার মানুষ। ইতোমধ্যে ভাঙ্গন রোধে স্থায়ী ব্যবস্থা নিয়েছে পানি উন্নয়ন বোর্ড।

সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় প্রাথমিক কাজ শুরু করলেও ভাঙ্গনে চরম ঝুঁকি দেখা দিয়েছে খুদখালী এলাকার মিজানের বাড়ী হতে সিরাজুলের বাড়ী পর্যন্ত ১৭৫ মিটার ওয়াপদার বেড়িবাঁধ। পুরাতন বেড়িবাঁধের বেশিরভাগ অংশ ইতোমধ্যে ভাঙ্গনে শিবসা নদীতে ভেসে গিয়াছে

ইউপি চেয়ারম্যান জিএম আব্দুস সালাম কেরু জানান, ভরা আমাবস্যা-পুর্ণিমা আসলেই নদীতে অস্বাভাবিক পানি বৃদ্ধি পায়। এ সময় ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ভেঙ্গে গেলে পাইকগাছা উপজেলার গড়ইখালী, চাঁদখালী, লস্কর এবং কয়রা উপজেলার আমাদী ও মহেশরীপুর ইউনিয়নের বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হয়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হতে পারে এমন আশঙ্কা রয়েছে। বিষয়টি স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আক্তারুজ্জামান বাবু, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মমতাজ বেগম ও পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মহোদয় ঝুঁকিপূর্ণ স্থানে বিকল্প প্রতিরক্ষা বাঁধ নির্মাণ করার নির্দেশনা দিয়েছেন। ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান আররাদ কর্পোরেশন এর সহযোগিতায় পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃপক্ষের তদারকিতে স্কেভেটর দিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ স্থানে শনিবার সকাল থেকে বিকল্প প্রতিরক্ষা বাঁধ নির্মাণ কাজ শুরু করা হয়েছে। তবে ওয়াপদার নীচে সরকারি খাস জমিতে বসবাসরত অনেকেই নির্মাণ কাজে বাঁধা দিচ্ছেন বলে স্থানীয় এ জনপ্রতিনিধি জানান।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের প্রকৌশলী আরাফাত জাহান, আওয়ামী লীগনেতা আব্দুস সাত্তার, আবুল কালাম, আব্দুল মজিদ গাইন ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের আবু তাহের।

নিউজ শেয়ারঃ

আরও সংবাদ

জনপ্রিয় সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

আলোচিত সংবাদ

নিউজ শেয়ারঃ
 ঘোষণাঃ
বিডি হেডলাইন্স ২৪ ডট কম
শিরোনামঃ
Verified by MonsterInsights