আজ ১৫ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ও ১লা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ এবং ৭ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

জনপ্রতিনিধিদের ঐক্যবদ্ধভাবে ‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ বিনির্মাণে কাজ করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

  • In শীর্ষ
  • পোস্ট টাইমঃ ৩ জুলাই ২০২৩ @ ০৪:৫৯ অপরাহ্ণ ও লাস্ট আপডেটঃ ৩ জুলাই ২০২৩@০৪:৫৯ অপরাহ্ণ
জনপ্রতিনিধিদের ঐক্যবদ্ধভাবে ‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ বিনির্মাণে কাজ করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

।।নিজস্ব প্রতিবেদক।।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশকে ২০৪১সালের মধ্যে একটি উন্নত, সমৃদ্ধ ও ‘স্মার্ট বাংলাদেশে’ রূপান্তর করতে দল-মত নির্বিশেষে সকল জনপ্রতিনিধিকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ২০৪১সালের মধ্যে বাংলাদেশকে একটি উন্নত, সমৃদ্ধ ও স্মার্ট বাংলাদেশে পরিণত করার জন্য আমি (দল-মত নির্বিশেষে) সকল জনপ্রতিনিধিকে আহ্বান জানাচ্ছি।

শেখ হাসিনা আরো বলেন, বাংলাদেশের জনসংখ্যা, অর্থনীতি ও কৃষিসহ সবকিছুই স্মার্ট হবে। তাই দেশের কাঙ্খিত উন্নয়নে কাজ করতে হবে। আজ প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের শাপলা হলে তিন সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র বরিশালের আবুল খায়ের আবদুল্লাহ, খুলনার তালুকদার আবদুল খালেক ও গাজীপুরের জায়েদা খাতুনের শপথ অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের প্রার্থী নির্বাচিত হয়ে জনপ্রতিনিধি হয়েছে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন- বাংলাদেশের সার্বিক উন্নয়নে আমাদের একসঙ্গে কাজ করতে হবে। এ প্রসঙ্গে শেখ হাসিনা বলেন- তিনি সবার প্রধানমন্ত্রী এবং দেশের উন্নয়নমূলক কাজের ক্ষেত্রে কে তাঁর দল থেকে নির্বাচিত হয়েছেন তা দেখেন না। প্রধানমন্ত্রী বলেন- আমরা এলাকা দেখে কাজ করি না। প্রতিটি নাগরিকের উন্নতির জন্য কাজ করছি। এই প্রসঙ্গে কমিউনিটি ক্লিনিক প্রতিষ্ঠার কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন- তিনি এটি সবার জন্য করেছেন। তিনি বলেন- আমি যা কিছু করি জনগণের কল্যাণের জন্য করি।

তিনি সকলকে নিজ এলাকার সার্বিক উন্নয়ন নিশ্চিতে পরিকল্পনা প্রণয়ন এবং জনগণের আস্থা ও বিশ্বাস অর্জনে কাজ ও সেবা করার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, আপনারা (তিন সিটি কর্পোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র ও কাউন্সিলর) জনগণের ভোটে নির্বাচিত হয়ে তাদের সেবা করার সুযোগ পেয়েছেন। আমি চাই, আপনারা জনগণের সেবা ও তাদের প্রত্যাশা পূরণ করবেন। পরে সাধারণ ওয়ার্ডের নবনির্বাচিত ১৫৭জন কাউন্সিলর এবং তিন সিটি করপোরেশনের সংরক্ষিত আসনের মহিলা কাউন্সিলররাও একই স্থানে শপথ নেন। এর মধ্যে বরিশাল থেকে ৪০জন, খুলনার ৪১জন এবং গাজীপুর সিটির ৭৬জন কাউন্সিলর রয়েছেন। স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম কাউন্সিলরদের শপথ বাক্য পাঠ করান। শপথ অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব মুহাম্মদ ইবরাহিম। মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন এলজিআরডি ও সমবায়প্র্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য।

উল্লেখ্য, গত ১২জুন বরিশাল সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী আবুল খায়ের আবদুল্লাহ (খোকন সেরনিয়াবাত) ৮৭,৮০৭ ভোট পেয়ে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের প্রার্থী মুফতি সৈয়দ মোহাম্মদ ফয়জুল করিমকে পরাজিত করেন- যিনি মাত্র ৩৩,৮২৮ভোট পেয়েছেন। খুলনা সিটি করপোরেশন (কেসিসি) নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মেয়র প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেক ১,৫৪,৮২৫ভোট পেয়ে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দী ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মোঃ আব্দুল আউয়ালকে পরাজিত করেছেন। গত ১২জুন অনুষ্ঠিত নির্বাচনে মোঃ আব্দুল আউয়াল ৬০,০৬৪ভোট পেয়েছেন।

গত ২৫মে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন (জিসিসি) নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী জায়েদা খাতুন ২৩৮,৯৩৪ ভোট পেয়ে জয়ী হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আজমত উল্লাহ খান ২২২,৭৩৭ভোট পেয়েছিলেন।

নিউজ শেয়ারঃ

আরও সংবাদ

জনপ্রিয় সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

আলোচিত সংবাদ

নিউজ শেয়ারঃ
শিরোনামঃ
Verified by MonsterInsights